চঞ্চল-শাওনের ভাইরাল গান নিয়ে মুখ খুললেন আয়োজক


বিনোদন ডেস্ক ॥

‘আইপিডিসি আমাদের গান’ শীর্ষক এক আয়োজনের অংশ হিসেবে জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী পার্থ বড়ুয়ার সংগীতায়োজনে ‘যুবতী রাধে’ গানটি প্রকাশ হয়েছে ইউটিউবসহ সোশাল মিডিয়ায়। আইপিডিসি ফাইন্যান্স লিমিটেডের উদ্যোগে প্রকাশিত গানটি গেয়েছেন জনপ্রিয় দুই তারকা চঞ্চল চৌধুরী ও মেহের আফরোজ শাওন। তাদের কণ্ঠে গানটি বেশ সাড়া ফেলেছে।

এ গান নিয়ে বেধেছে বিতর্ক। গানটি মূলত সরলপুর ব্যান্ডের। কিন্তু নতুন করে গানটির সংগীতায়োজন করে প্রকাশ করা আইপিডিসি গানের পরিচয়ে তাদের কোনো কৃতজ্ঞতা দেয়নি। সেখানেই বিপত্তি। তাই সরলপুর ব্যান্ড গানটি সরিয়ে নিতে আইপিডিসিকে অনুরোধ জানিয়েছে। সেই প্রেক্ষিতে নিজেদের ইউটিউব চ্যানেল থেকে গান সরিয়েও নিয়েছে আইপিডিসি।

সেইসঙ্গে তারা একটি ব্যাখ্যাও দিয়েছে এ গান করা এবং সরিয়ে নেয়া প্রসঙ্গে। আইপিডিসির অফিসিয়াল ফেসবুক পেজে তারা জানিয়েছে, বাংলাদেশের মাটি ও মানুষের গান নিয়ে একটি ভিন্ন মাত্রার সংগীতায়োজন ‘IPDC আমাদের গান’। এই আয়োজনের মূল উদ্দেশ্য বাংলার অমূল্য সম্পদ লোকজ সংগীতকে সঠিকভাবে উপস্থাপনের মাধ্যমে বাংলাদেশসহ সারা বিশ্বের সামনে তুলে ধরা ও বাংলাদেশের সম্মানকে বিশ্বের মাঝে সমুজ্জ্বল করা।

গত ২০ অক্টোবর ২০২০ তারিখে এই আয়োজনের তৃতীয় পরিবেশনায় ‘সর্বত মঙ্গল রাধে’ শিরোনামে গানটি প্রকাশের পর একটি ব্যান্ড সামাজিক মাধ্যমে গানটির স্বত্বাধিকার তাদের বলে দাবি করে। এই গানটির মূল শিল্পীর খোঁজ করতে গিয়ে আমরা ভিন্ন ভিন্ন তথ্য পাই। কিন্তু কোনো ক্ষেত্রেই মূল শিল্পীর ব্যপারে নির্ভরযোগ্য তথ্য পাওয়া যায়নি। স্বত্ত্ব দাবিকারী ব্যান্ডটি তাদের গানের বিভিন্ন মাধ্যমে পরিবেশনায় আইনি স্বত্ব উল্লেখ করেননি। এমতাবস্থায় গানটিকে একটি সংগৃহীত গান হিসেবে উল্লেখ করে পরিবেশন করা হয়েছিল।

পরবর্তীতে উক্ত স্বত্ব দাবির অনুসন্ধানে দাবিকৃত ব্যান্ড -এর সাথে যোগাযোগ করা হয় এবং প্রাথমিকভাবে যোগাযোগের পরিপ্রেক্ষিতে তাদের পরবর্তী যোগাযোগের অপেক্ষা করছি। অধিকতর অনুসন্ধানে এবং প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনার জন্য কপিরাইট কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ শুরু করা হয় এবং কপিরাইট কর্তৃপক্ষ বিষয়টি তথ্য প্রমানের ভিত্তিতে সমাধানের আশ্বাস দিয়েছেন। স্বত্ব দাবির বিষয়টির সমাধানপূর্ব সময়ে ‘IPDC আমাদের গান’ কর্তৃপক্ষ উল্লেখিত গানটির সকল প্রকার সম্প্রচার বন্ধ রাখবে।

যেকোনো কার্যক্রম ও সম্পৃক্ততার ক্ষেত্রে সতর্কতা, সততা ও স্বচ্ছতা বজায় রাখার অঙ্গীকারে এই দায়িত্বশীল উদ্যোগটি শুরু করা হয়। বাঙালির আপন সংস্কৃতিকে আরো সমৃদ্ধ করার পাশাপাশি এর সাথে সংযুক্ত সকল শিল্পী, গীতিকার, সুরকার ও কলাকুশলীদের প্রতি যথাযথ সম্মান প্রদর্শন ‘IPDC আমাদের গান’ এর লক্ষ্য। এই লক্ষ্য পূরণে সবার দায়িত্বশীল সহযোগিতা একান্ত কাম্য।

আমাদের একান্ত কামনা এবং দৃঢ় বিশ্বাস পারস্পরিক সম্মান বজায় রেখে দেশীয় শিল্পের স্বার্থে বিষয়টির একটি সুষ্ঠ সমাধান শীঘ্রই সম্ভব হবে। সুধী দর্শক-শ্রোতাদের এই সময়টুকু ধৈর্য সহকারে অপেক্ষার অনুরোধ রইলো।


[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-barisaltribune@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]