চরফ্যাশনে স্কুল শিক্ষিকার বিরুদ্ধে জমি আত্নসাতের অভিযোগ

  • 14
    Shares

চরফ্যাশন প্রতিনিধি : চরফ্যাশনের স্কুল শিক্ষিকার বিরুদ্ধে জাল দলিল তৈরী করে জমি আত্মসাতের মামলা করেছেন চর নাংলাপাতা গ্রামের মৃত আ.হান্নান হাওলাদারের ছেলে শাহাবুল আলম।

গত ১৩ অক্টোবর চরফ্যাসন সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। আদালত মামলা তদন্ত করে ২৩ নভেম্বর প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ভোলার ডিবি ওসিকে নির্দেশ দিয়েছেন। গতকাল শুক্রবার সংশ্লিষ্ট আইনজিবীরা এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

অভিযোগে বলা হয়, সালিশ রোয়েদাদ তৈরীর জন্য ৪ ফর্দ ফাঁকা স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নিয়ে পরে ওই স্ট্যাম্প ব্যবহার করে ২০১০ সনের ৭ জানুয়ারী চরফ্যাসন সাবরেজিস্ট্রি অফিসে ৬৯/১০ নম্বর দলিল রেজিস্ট্রির মাধ্যমে চর নাংলাপাতা মৌজার এসএ ৬১ ও খতিয়ানের ১৭ শতাংশ জমি জাল দলিল করে নেন।

বাদী তা শাহাবুল আলম এই সাব রেজিস্ট্রি অফিসে যাননি এবং কোথাও সহি স্বাক্ষর দেননি বলে আর্জিতে উল্লেখ করেন। মামলায় গ্রহীতার স্বামী আবুল কালাম আজাদ, আত্মীয় সবুজ এবং দলিল লিখক ফিরোজকে আসামী করা হয়েছে। বিজ্ঞ আদালত মামলাটি তদন্তের জন্য ভোলার ডিবি পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছেন।

অভিযোগ প্রসঙ্গে দলিলের গ্রহীতা ছালেহা বেগম বলেছেন, ওই দলিলের দাতা দুই জন। ভাই শাহাবুল আলম ও মা জাহানারা বেগম আমাকে ২০১০ সনে শশীভূষণ সাব রেজিস্ট্রার অফিসে ২৫ শতাংশ জমি দলিল দেন। মামলায় এই সত্য গোপন করা হয়েছে। কোন জাল জালিয়াতি নয়। উপযুক্ত মূল্য দিয়ে যথাযথ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে জমি ক্রয় করে তাতে বাড়ি করে বসবাস করছি। এখানে জাল জালিয়াতির কিছু নেই। তদন্তে প্রকৃত সত্য প্রকাশ পাবে।


  • 14
    Shares

[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-barisaltribune@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]