চাঁদপুরে মকবুল-২ লঞ্চে ডাকাতি


অমরেশ দত্ত জয়, চাঁদপুর : চাঁদপুরের মতলবগামী মকবুল-২ নামের একটি ছোট লঞ্চে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ১৯ নভেম্বর বৃহস্পতিবার রাতে এ অভিযোগ পাওয়া যায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন গজারিয়া নৌ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মুজিবুর।

তিনি জানান, ওই লঞ্চটি নারায়ণগঞ্জ থেকে চাঁদপুরের মতলবের দিকে আসছিলো। হঠাৎ করে ষাটনল এলাকা লঞ্চটি অতিক্রম কালে ডাকাতির ঘটনা ঘটে।

তিনি আরো জানান, ডাকাতরা কয়েক লক্ষ টাকার মালামাল ও নগদ অর্থ হাতিয়ে নিয়েছে বলে যাত্রীরা অভিযোগ করেছে। আমরা উর্দ্ধতনের নির্দেশে ডাকাতদের আটক করতে অভিযান চালিয়ে যাচ্ছি।

এদিকে একাধিক সূত্রে জানা যায়, ওই ডাকাতদল ৩০/৪০ জনের মোবাইল নিয়ে গেছে।ওই সব মোবাইলের ফোন নাম্বার ট্রাকিং করলেও ডাকাতদের ধরা সম্ভব হতে পারে। তাছাড়া ওই লঞ্চটির নিরাপত্তাকর্মীদেরকেও সন্দেহজনক মনে হচ্ছে। কেননা তারা ডাকাতদের প্রতিরোধ করতে তেমন কোন ভূমিকাও নেয়নি। বরং কয়েকজন যাত্রী ডাকাতদের প্রতিরোধ করতে গেলে তাদেরকে বেধরক মারধর করা হয়েছে। সেই সময়ে লঞ্চে আতংক সৃষ্টি করতে বেশ কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়েছে ডাকাতদল।

এদিকে এমভি মকবুল-২ লঞ্চের স্টাফ সবুজ মিয়া জানান, স্পিডবোটে একজন ডাকাত সদস্য রাত আনুমানিক পৌনে ১১ টায় লঞ্চে প্রবেশ করেছে। এরপর বেশ কিছুক্ষণ পরেই দু’টি স্পিডবোটে আরো ১০-১২ জন ডাকাত লঞ্চে প্রবেশ করেছে।পরে ফাঁকা গুলি ছুড়ে যাত্রীদের মধ্যে আতঙ্ক সৃষ্টি করে শতাধিক মোবাইলফোন, নগদ টাকা, নারীদের স্বর্ণালঙ্কার ও বিভিন্ন মালামাল লুট করে তারা নিয়ে যায়।  এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত এ ঘটনায় লঞ্চ কর্তৃপক্ষ মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলেও জানা গেছে।


[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-barisaltribune@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]