ছিনতাইকারীকে ছাড়াতে এসে ঝালকাঠির শহীদ গ্রেফতার


নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা মডেল থানায় আজমীর নামে এক ছিনতাইকারীকে ছাড়াতে এসে শহীদ নামে এক প্রতারক গ্রেফতার হয়েছে।

শনিবার (২৩ জানুয়ারি) বিকেলে ফতুল্লা মডেল থানায় তাকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত শহীদের (৫০) বাড়ি ঝালকাঠি জেলার নলছিটি থানার কামদেপপুর গ্রামে। তিনি ফতুল্লা রেলস্টেশন এলাকায় বসবাস করেন।

পুলিশ জানায়, শুক্রবার (২২ জানুয়ারি) রাতে ইজিবাইক ছিনতাইকালে ফতুল্লার দাপাইদ্রাকপুর এলাকা থেকে আজমীর নামে এক ছিনতাইকারীসহ তার দুই সহযোগীকে গ্রেফতার করে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত আজমিরের বিরুদ্ধে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশের অস্ত্র চুরি, ডাকাতি, ছিনতাইসহ একাধিক মামলা রয়েছে।

পুলিশ আরো জানায়, ছিনতাইকারী আজমীরকে ছাড়িয়ে নিতে প্রতারক শহীদ পুলিশ অফিসারদের ওপর উত্তেজিত হয়ে মারমুখী আচরণও করেছে। এতে থানায় আসা সেবাপ্রার্থীরাও প্রতারকের ওপর ফুসে উঠে। একপর্যায়ে পুলিশ বাধ্য হয়ে তাকে গ্রেফতার করেন।

এ বিষয়ে ফতুল্লা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আসলাম হোসেন জানান, শহীদ একজন দুর্ধর্ষ প্রতারক। তিনি যেমন পাবলিকের সঙ্গে প্রতারণা করেন। তেমনি পুলিশের সঙ্গেও প্রতারণা করার চেষ্টা করেছে। থানায় প্রবেশ করে গ্রেফতারকৃত এক দুর্ধর্ষ অপরাধীকে ছেড়ে দিতে পুলিশকে হুমকি দিয়েছেন। এতে পুলিশ তার কথা না শুনায় আক্রমণাত্মক আচরণ করতে থাকেন। একপর্যায়ে আমি তাকে ডাকলে সে আমার সঙ্গেও হুমকি দিয়ে কথা বলেন।

তিনি হুমকি দিয়ে বলেন, ‘আজমিরকে ছাড়বেন না, আইজি সাহেব ডিআইজি সাহেবও আমার সঙ্গে এ রকম করেন না। আমি খুব মাইন্ড করলাম আমার নাম শহীদ’। এরপর তাকে ৫৪ ধারায় গ্রেফতার করা হয়েছে।


[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-barisaltribune@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]