জিমি, উডের পর ওলি স্টোন, দুশ্চিন্তায় ইংল্যান্ড


বিশ্বকাপ জয়ের পর ফুরফুরে মেজাজে অ্যাশেজ সিরিজ শুরু করেছিল ইংল্যান্ড। যদিও সিরিজের প্রথম ম্যাচেই অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে গেছে ইংলিশরা। এমনিতেই হারের দুঃস্মৃতি, মরার ওপর খাড়ার ঘা হয়ে এসেছে জোড়া ইনজুরির ধাক্কা। এজবাস্টন টেস্ট চলার সময়ই জিমি অ্যান্ডারসন ও মার্ক উডের ইনজুরির দুঃসংবাদ।

মাঠে নামার আগেই শেষ হয়ে গেছে উডের অ্যাশেজে খেলার স্বপ্ন। অ্যান্ডারসন মাঠে নেমেই চোটে পরেছেন। প্রথম টেস্ট পুরোপুরি খেলতে পারেননি ইংলিশ এই পেসার। ইনজুরির কারণে দ্বিতীয় টেস্টেও দর্শক সারিতে থাকবেন জিমি। ডানহাতি বিধ্বংসী পেসার কবে নাগাদ মাঠে ফিরতে পারবেন তা নিয়ে এখনো দুশ্চিন্তায় ভুগছে ইংল্যান্ড।

এর মধ্যে আরেকটা ধাক্কা খেতে হলো স্বাগতিকদের। জিমি, উডের পর এবার ইনজুরির শিকার হলেন তরুণ পেসার ওলি স্টোন। যাকে অ্যান্ডারসনের বিকল্প পেসার হিসেবে ভাবা হচ্ছিল। কিন্তু ১৪ আগস্ট লর্ডস টেস্টে এই উঠতি তারকাকেও একাদশে পাচ্ছে না ইংলিশরা। জিমি ছিলেন বিধায় স্টোনকে স্কোয়াডে রাখেনি ইংল্যান্ড। আর সুযোগও নেই।

অ্যাশেজ সিরিজ শুরুর আগে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক হয়েছে স্টোনের। আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে লর্ডসে একমাত্র টেস্টে খেলেছিলেন তিনি। জিমির ইনজুরির পর আশায় বুক বেঁধেছিলেন স্টোন। কিন্তু আপাতত স্বপ্নের সমাধী হয়ে গেল তার। অন্তত দুই সপ্তাহ মাঠে নামতে পারবেন না তিনি। বুধবার অনুশীলন চলাকালীন কোমড়ে ব্যথা পেয়েছেন স্টোন। স্টোনও ছিটকে যাওয়ায় দ্বিতীয় টেস্টে জিমির বিকল্প হিসেবে কে সুযোগ পাচ্ছেন আপাতত এনিয়ে চলছে জল্পনা।


বরিশালট্রিবিউন.কম’র (www.barisaltribune.com) প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।