ঝালকাঠিতে স্বর্ণ কিশোরী সারার ওপর হামলাকারী যুবায়ের কারাগারে


নিজস্ব প্রতিবেদক : ঝালকাঠির স্বর্ন কিশোরী নাছরিন আক্তার সারার ওপর হামলা ও ইভটিজিং মামলায় যুবায়ের আদনান নামে এক যুবককে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছে আদালত। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে ঝালকাঠির সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে আত্মসমর্পন করে জামিনের আবেদন করলে বিচারক এ.এস.এম তারেক শামস জামিন আবেদন না মঞ্জুর করে যুবায়েরকে জেল হাজতে পাঠানোর আদেশ দেন।

জুবায়েরের পক্ষে আদালতে শুনানী করেন অ্যাডভোকেট এম আলম খান কামাল ও মানিক আচার্য্য। যুবায়ের বরগুনা সদর উপজেলার নিশানবাড়িয়া গ্রামের জাকির হোসেনের ছেলে। বর্তমানে তাঁর বাবা ঝালকাঠি সদর উপজেলার ছিলারিস গ্রামে একটি মসজিদের ইমাম হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। সে ঝালকাঠি শহরের একটি কলেজের স্কাউটস’র টিম লিডার।

মামলার বিবরণে জানা যায়, প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় গত ২ অক্টোবর স্বর্ণ কিশোরী সারার বাসায় ঢুকে তাঁর ওপর হামলা করে জুবায়ের আদনান। এ ঘটনায় ওই দিন রাতে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে ঝালকাঠি থানায় মামলা দায়ের করে নছরিন আক্তার সারা।

এদিকে গত ৯ অক্টোবর আসামি জুবায়েরকে গ্রেপ্তারের দাবিতে ঝালকাঠি থানার সামনে অনশন করে সারা। ৭২ ঘন্টার মধ্যে আসামি গ্রেপ্তারের প্রতিশ্রæতি পেয়ে অনশন ভাঙেন সারা। একইদিন ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো. হাবীবুল্লাহ মামলাটি গোয়েন্দা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেন। ডিবির একাধিক টিম জুবায়েরকে গ্রেপ্তারের জন্য বরিশাল, ঝালকাঠি ও রাজাপুরে অভিযান চালায়। ডিবি পুলিশের অভিযানে বারবার অবস্থান বদল করে দিশেহারা জুবায়ের আদালতে আত্মসমপর্ন করতে বাধ্য হয়।

মামলার বাদী নাসরিন আক্তার সারা বরিশাল ট্রিবিউনকে জানান,জুবায়েরকে জেল হাজতে প্রেরণ করায় আমি অত্যন্ত খুশি।আমি ওর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি ।


[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-barisaltribune@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]