টানা বৃষ্টিতে তলিয়ে গেছে রাজধানী


টানা বৃষ্টিতে রাজধানী ঢাকার অধিকাংশ জায়গা তলিয়ে গেছে। কোথাও কোমড় পানি কোথাও বা হাঁটুপানি। এতে সাপ্তাহিক ছুটির দিনেও দুর্ভোগে পড়েছেন নগরবাসী। শুক্রবার (১২ জুলাই) সকাল থেকেই বৃষ্টি হচ্ছিল। দুপুরে প্রবল বর্ষায় রূপ নেয়। আর এতেই নাকাল রাজধানীবাসী।

কাজীপাড়া, শেওড়াপাড়া, শ্যামলী, রোকেয়া সরণি, মিরপুর ১০, মিরপুর ১১, কালশী, আরামবাগ, ফকিরাপুল, মতিঝিলসহ বিভিন্ন এলাকায় সবচেয়ে খারাপ পরিস্থিতি। ফলে চরম ভোগান্তিতে পড়তে হয়েছে এলাকাবাসীকে। অনেক জায়গার রাস্তা গোড়ালি সমান পানির নিচে চলে গেছে। মানুষজনকে নোংরা পানি ডিঙিয়ে গন্তব্যে যেতে দেখা গেছে।

তবে শুক্রবার সাপ্তাহিক ছুটির দিন হওয়ায় আজ রাজধানীতে যানজট কম থাকলেও বিভিন্ন এলাকায় বর্ষাকালের খোঁড়াখুঁড়ির কারণে পানি জমা পথে চলাচল করতে সমস্যা হচ্ছে।

রাস্তা সংস্কার ও মেট্রো রেলের মতো উন্নয়ন কাজ চলমান থাকায় মালিবাগ ও রোকেয়া সরণির মতো এলাকায় অবস্থা সবচেয়ে খারাপ। এসব এলাকার বাসিন্দাদের দুর্ভোগ চরমে পৌঁছেছে।

অন্যদিকে বৃষ্টির পানি বের হওয়ার ব্যবস্থা না থাকায় মৌচাক-মগবাজার ফ্লাইওভারে হাঁটুপানি দেখা গেছে।

ভারী বৃষ্টিপাতে নিম্ন-আয়ের মানুষ, বিশেষ করে দিনমজুররা সবচেয়ে বাজে অবস্থায় পড়েছেন। বৃষ্টির কারণে তাদের স্বাভাবিক কর্মজীবন থেমে গেছে। বেশিরভাগই খারাপ আবহাওয়ার মুখে ঘর থেকে বের হতে পারেননি।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের কর্মকর্তা আব্দুর রহমান জানান, দুপুর ১২টা থেকে ২টা পর্যন্ত ঢাকায় ৪৮ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।এছাড়াও, রংপুর, ময়মনসিংহ, সিলেট, চট্টগ্রাম, বরিশাল এবং খুলনাসহ দেশের অনেক জায়গায় হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাত হয়েছে। আগামী দু-একদিনের মধ্যে এই বৃষ্টিপাত কমে যেতে পারে বলেও জানান তিনি।


বরিশালট্রিবিউন.কম’র (www.barisaltribune.com) প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।