বরিশালে ঠিকাদারকে গুলি করে হত্যার হুমকি, হেলমেট দিয়ে মারধর


শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজের একটি সাব স্টেশন সংস্কারের কাজ নিয়ে ঠিকাদারকে হুমকি ও মারধর করেছে ১১ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা সোহেল ওরফে বাঘা সোহেল। আজ দুপর পৌনে ১টার দিকে বরিশাল গণপূর্ত অফিসে এ ঘটনা ঘটে। হুমকি ও মারধরের বিচার পেতে এ ঘটনায় কােতয়ালী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করা হয়েছে। ডায়েরী নং ৩৮৭।

জানা গেছে, জর্ডন রোডের বাসিন্দা আল মামুন ও সাদ্দাম হোসেন অংশিদারমূলে ঠিকাদারী কাজ করে থাকে। দীর্ঘ দিন ধরে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের একটি সাব স্টেশনের কাজে দরপত্র প্রদানে নিষেধ করে আসছিলো আরশেদ আলী কন্ট্রাকটর সড়কের বাসিন্দা সোহেল ও রিসাদ। তারা নিজেদের ক্ষমতাশীন দলের পরিচয় দিয়ে এই বাধা প্রদান করছিল বলে জানান অভিযোগকারী আল মামুন। কিন্তু নিষেধ না শুনে দরপত্র প্রদান করলে কাজটি পায় মামুন ও সাদ্দামের ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে মুঠোফোনের দুটি নাম্বার দিয়ে মামুন এবং সাদ্দামকে গুলি করে ও গাড়ি চাপা দিয়ে হত্যার হুমকি দেন সোহেল। এতেও শান্ত না হয়ে আজ দুপুর পৌনে একটার দিকে গণপূর্ত অফিস বাউন্ডারীতে সাদ্দামকে পেয়ে হেলমেট দিয়ে পিটিয়ে আহত করে।

এ বিষয়ে সাদ্দাম হােসেন বলেন, আমরা যেন কাজ করতে না পারি সেজন্য হুমকি দিয়ে আসছে। এমনকি গণপূর্ত অফিসে যেন আমরা প্রবেশ না করি সেই কথা বলে। প্রবেশ করলে মেরে ফেলবে বলে জানায়।

অভিযুক্ত সোহেল মুঠোফোনে জানান, আমরা পরস্পরে সমঝোতায় দরপত্র প্রদান করে থাকি। কিন্তু সমঝোতার বিষয়টি না মেনে দরপত্র প্রদান করায় একটু শাসিয়েছি।##


বরিশালট্রিবিউন.কম’র (www.barisaltribune.com) প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।