রাজনৈতিক বিরোধ থাকলেও দেশের স্বার্থ আগে দেখতে বললেন সাদিক


সাংবাদিক মাইনুল হাসান স্মৃতি সংসদের ফান্ডে ব্যক্তিগত তহবিল থেকে দুই লাখ টাকা অনুদান প্রদানের ঘোষণা দিয়ে বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ বলেছেন-সাংবাদিক ও রাজনীতিবিদরা একে অন্যের পরিপূরক। এর মধ্যে সাংবাদিকরা লিখনীর মাধ্যমে জনগনের কথা বলে আর রাজনীতিবিদরা জনগনের জন্য রাজনীতি করেন।

 

তাই দেশে যে পরিবর্তনের হাওয়া লেগেছে তাতে এক সাথে কাজ করা গেলে আমাদের দেশ আরো এগিয়ে যাবে।

মেয়র গতকাল শুক্রবার রাতে দক্ষিণাঞ্চলের পেশাদার সাংবাদিকতার পথিকৃৎ মাইনুল হাসানের ১৫তম মৃত্যুবার্ষিকী সাংবাদিক মাইনুল হাসান স্মৃতিপদক প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির দেয়া বক্তব্যে একথা বলেন।

 

পরিষদের সভাপতি সৈয়দ দুলালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানে মেয়র আরো বলেন, আমি আমার পরিবার থেকে গুনীজনদের সন্মান করা শিখেছি। আমি নিজের স্বার্থে নয়, সাধারণ মানুষের স্বার্থে কাজ করি। নগরবাসীর স্বার্থে কাজ করি। আমার ব্যক্তিগত কোন দূর্বলতা নাই। আমি অন্যায় করিনা এবং অন্যায়কে প্রশয় দেইনা। আমার বিবেক যেটা বলে আমি সেটা করি। সত্যটাকে সত্য বলি।

আমাদের সংগঠনের কেউ যদি অবৈধ কর্মকান্ডে যুক্ত থাকে তাহলে তার বিরুদ্ধে অবশ্যই সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে। মেয়র বলেন, আজ আমাদের ব্যক্তিস্বার্থ ভুলে সমাজ ও দেশের স্বার্থ চিন্তা করতে হবে। সাদাকে সাদা আরা কালাকে কালা বলতে হবে। রাজনৈতিক মতবিরোধ থাকতেই পারে কিন্তু আগে আমাদের বরিশালের স্বার্থ সর্বোপরি দেশের স্বার্থ দেখতে হবে। মেয়র সাংবাদিকদের প্রতি আহবান জানিয়ে বলেন, আমি যদি ভালো কাজ করি সেটা প্রচার করুন আবার যদি কোন অন্যায় করি তাহলে তাও লিখুন।

আসুন আমরা সকলে মিলে গুনীজনদের পথ অনুসরন করে দেশটাকে আরো সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাই এবং ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য একটি বাসযোগ্য নগরী উপহার দেই। অনুষ্ঠানে সংবর্ধিত গুনীজন সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব ও প্রবীন সাংবাদিক অ্যাড. এস এম ইকবালের হাতে ক্রেস্ট ও চেক তুলে দেন মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ। নগরীর শব্দাবলী স্টুডিও থিয়েটারে অনুষ্ঠিত পদক প্রদান অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে সাংবাদিক অ্যাড. মানবেন্দ্র বটব্যাল, মুক্তিযোদ্ধা নুরুল আলম ফরিদ, সাংবাদিক ইউনিয়ন বরিশাল-এর সভাপতি গোপাল সরকার, বরিশাল সাংবাদিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক স্বপন খন্দকার, বরিশাল রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি সুশান্ত ঘোষ, রাজনীতিবিদ অধ্যা. মহসিন উল ইসলাম হাবুল, অ্যাড. আঃ হাই মাহবুব, অ্যাড. হিরন কুমার দাস মিঠু, বরিশাল সাংস্কৃতিক সংগঠন সমন্বয় পরিষদের সভাপতি কাজল ঘোষ, সাংবাদিক মাইনুল হাসান স্মৃতি সংসদের সাধারণ সম্পাদক পুলক চ্যাটার্জী প্রমুথ বক্তব্য রাখেন।

সংবর্ধিত গুনীজনের জীবনী পাঠ করেন সাংবাদিক নজরুল ইসলাম চুন্নু। পুরো অনুষ্ঠান সঞ্চালন করেন সাংবাদিক মুরাদ আহমেদ।


[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন[email protected]এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]