শীতের আগমনে লেপ-তোষক তৈরির ধুম লালপুরে

  • 18
    Shares

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, নাটোর : দেশের সবচেয়ে উষ্ণতম অঞ্চল নাটোরের লালপুরে দিনে কিছুটা গরম থাকলেও রাতে শীতল বাতাসে শীতের প্রভাব বর্তমানে বাড়ছে। তাই বনলতা সেনের স্মৃতি বিজারিত সেই বিখ্যাত কাঁচাগোল্লার সুমিষ্ট রসে ভরা নাটোর জেলার ঐতিহাসিক স্হান লালপুর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে লেপ-তোষক তৈরিতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে কারিগররা।

লালপুর উপজেলার বিভিন্ন গ্রামগঞ্জ/হাট-বাজার এবং দোকান পাট ঘুরে দেখা গেছে শীতের প্রভাবে লালপুর জেলার বাসিন্দার আগাম শীতের কাপড় ও লেপ তোষক বানানোর দোকানে ভীড় করেছে।

উপজেলার লালপুর বাজারের এক লেপ-তোষক বিক্রেতা বলেন, ক্রেতার ভীড় আস্তে আস্তে আরো বাড়বে এবং আমরা ক্রেতাদের নিকট পূর্বের মতোই স্বাভাবিক দামেই লেপ তোষক তৈরি করে বিক্রয় করছি।

উপজেলার দুড়দুড়িয়া, বিলমাড়ীয়া, মনিহারপুর, নওপাড়া, মহারাজপুর গ্রামে গিয়ে দেখা গেছে মহিলারা একে অপরের সহযোগিতায় বিভিন্ন বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে পুরাতন লেপ মেরামতে ব্যস্ত।

জোসনা নামের এক মহিলা বলেন, আমারা মহিলা মানুষ পুরাতন লেপের তুলা বের করে নতুন কাপড় ও তুলা দিয়ে কম খরচে লেপ তৈরি ও মেরামত করি।

এছাড়াও বর্তমানে উপজেলার বিভিন্ন গ্রাম গঞ্জে ফেরি করেও লেপ তোষক বিক্রয় করতে দেখা যাচ্ছে। দোকানীরা অর্ডার গ্রহণ এবং ক্রেতাদের বিভিন্ন রং মানের কাপড় ও তুলা দেখাতে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন। উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজারে এই দৃশ্যগুলো চোখে পড়ার মত।


  • 18
    Shares

[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-barisaltribune@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]