কলাপাড়ায় খাদ্যগুদাম প্রশাসনের দূর্নীতিতে শ্রমিকদের ধর্মঘট


কলাপাড়া প্রতিনিধি : কলাপাড়ায় সরকারী খাদ্য গুদাম প্রশাসনের অনিয়ম, দূর্নীতি প্রতিরোধ ও ন্যায্য মজুরী পাওয়ার দাবীতে ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে শ্রমিকরা।

বুধবার সকাল ১০টায় খাদ্য গুদাম ভবনের সামনে বিক্ষুব্ধ অর্ধশত শ্রমিক মানববন্ধন শেষে অনির্দিষ্ট কালের এ ধর্মঘটের ডাক দেয়। এতে দুস্থদের জন্য সরকারী বরাদ্দের চাল বহনকারী জাহাজ ঘাটে আটকে থাকায় বিপাকে পড়ে খাদ্যগুদাম প্রশাসন।

খাদ্যগুদাম শ্রমিক সর্দার মো: কালাম সরদার বলেন, খাদ্য গুদাম প্রশাসনের টন প্রতি পার্সেন্টিজ, অনিয়ম ও দূর্নীতির কারনে প্রায় অর্ধশত শ্রমিক বর্তমানে মানবেতর জীবন যাপন করছে। তাই শ্রমিকদের ন্যায্য দাবী প্রতিষ্ঠা ও অনিয়ম রোধে আমরা অনির্দিষ্ট কালের এ ধর্মঘটের ডাক দিয়েছি।

কালাম আরও বলেন, জাহাজ লোড আনলোড থেকে সরকারী বরাদ্দ থেকে টন প্রতি শতকরা ২৫ টাকা ভ্যাট কর্তনের পর ঠিকাদার ও গুদাম প্রশাসনকে টন প্রতি যথাক্রমে ৭০ ও ৫০ টাকা হারে পার্সেন্টিজ দিয়ে শ্রমিকদের অবশিষ্ট তেমন কিছু থাকেনা। এছাড়া ইতোপূর্বে ৮টি জাহাজ খালাস বিল বাবদ ৪ লক্ষ ৮০ হাজার টাকা আটকে রেখেছে গুদাম প্রশাসন। এরপরওএক্স বার বলে শ্রমিকদের প্রাপ্য মজুরী বিল উত্তোলন করে আত্মসাত করায় অসহায় হয়ে পড়েছে শ্রমিকরা।

এনিয়ে ভারপ্রাপ্ত খাদ্য গুদাম কর্মকর্তা মো: মনিরুজ্জামান’র সাথে একাধিক বার যোগাযোগের চেষ্টা করেও সংযোগ না পাওয়ায় তার বক্তব্য জানা যায়নি।

তবে উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা ধ্রুব মন্ডল বলেন, ’আমি বর্তমানে মির্জাগঞ্জের দায়িত্ব পালন করছি। কলাপাড়ার অতিরিক্ত দায়িত্ব নিয়েছি মাত্র ২/১ দিন। তাই এ বিষয়ে ভারপ্রাপ্ত খাদ্য গুদাম কর্মকর্তা বলতে পারবেন।


[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-barisaltribune@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]