রোহিঙ্গা শিবিরে আগুন: মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১১


কক্সবাজারের উখিয়ায় বালুখালী রোহিঙ্গা শিবিরে মঙ্গলবার ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১১জনের ঠেকেছে। চারটি ক্যাম্পের অন্তত দশ হাজার ঘর পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। পঞ্চাশ হাজারেরও বেশি মানুষ বাড়ি ঘর খুইয়ে কক্সবাজার-টেকনাফ সড়কে, আশে-পাশের পাহাড় ও জঙ্গলে ঠাঁই নিয়েছে।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো.মোহসিন জানিয়েছেন, ঘটনা তদন্তে আট সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।

কক্সবাজারের ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশন কার্যালয়ে মঙ্গলবার বিকেলে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি এ তথ্য প্রকাশ করেন।

তিনি আরও বলেন, আগুনে পুড়ে কম সংখ্যক মানুষেই আহত হয়েছে।

এর আগে কক্সবাজার ফায়ার স্টেশনের সিনিয়র স্টেশন অফিসার শাহদাত হোসেন জানান, আগুন রাতে নিয়ন্ত্রণে এলেও পোড়া ধ্বংস্তুপের বেশকিছু স্থানে ধোঁয়া দেখা যাচ্ছে।

দমকলবাহিনীর কর্মীদের পাশাপাশি স্থানীয়রা ধ্বংসস্তূপ সরাতে কাজ করছেন।

স্থানীয় সূত্র জানায়, সোমবার বেলা তিনটার দিকে বালুখালী ৮ নম্বর রোহিঙ্গা শিবিরের একটি ঘর থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়। একপর্যায়ে আগুন ছড়িয়ে পড়ে শিবির লাগোয়া ৮-ডব্লিউ ও এইচ, ৯ ও ১১ নম্বর শিবিরেও।রাত পৌনে ১০টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন দমকল বাহিনী।

রোহিঙ্গা শিবিরে দায়িত্বরত ব্র্যাকের সহকারী স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. রঞ্জু মিয়া জানান, সোমবার বিকাল থেকে দুই সহাস্রাধিক আহত মানুষকে তারা চিকিৎসা দিয়েছেন।

সোমবার বিকাল ৪টার দিকে উখিয়ার বালুখালী ৮-ডব্লিউ নম্বর রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়। পরে তা পাশের ৯, ১০ ও ১১ নম্বর ক্যাম্পে ছড়িয়ে পড়ে বলে অতিরিক্ত ত্রাণ ও শরণার্থী প্রত্যাবাসন কমিশনার সামছু-দৌজা নয়ন জানান।

তিনি বলেন, “ক্যাম্পের বসত ঘরগুলো ঝুপড়ির মতো লাগোয়া হওয়ায় এবং সে সময় বাতাসের গতি বেশি থাকায় আগুন দ্রুত ছড়ায়। আগুন লাগার সাথে সাথে স্বেচ্ছাসেবক কর্মীসহ স্থানীয়রা আগুন নেভানোর চেষ্টা চালায়। পরে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরাও আগুন নিয়ন্ত্রণে যোগ দেন।”

অতিরিক্ত শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মো. সামছুদ্দৌজা বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে যে আগুনের ঘটনায় প্রায় ১০ হাজার ঘর পুড়ে গেছে।


[প্রিয় পাঠক, আপনিও (www.barisaltribune.com) বরিশালট্রিবিউনের অংশ হয়ে উঠুন। আপনার এলাকার যে কোন  সংবাদ, লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-barisaltribune@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]